তামিল বিদ্রোহীদের হামলা নিয়ে ভারতের অভিযোগ উড়িয়ে দিল শ্রীলঙ্কা

অর্থনৈতিক সংকট নিয়ে শ্রীলঙ্কায় দেশজুড়ে বিক্ষোভ করছেন মানুষ। প্রাণঘাতী সহিংসতার ঘটনাও ঘটেছে। বিক্ষোভের মধ্যে প্রধানমন্ত্রী ও মন্ত্রিসভার পদত্যাগের পর নতুন প্রধানমন্ত্রী নিয়োগ দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপক্ষে। গতকাল চার মন্ত্রীও নিয়োগ দিয়েছেন তিনি। এতেও বিক্ষোভকারীরা আশ্বস্ত হতে পারেননি।

এর আগে গত বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী হিসেবে প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপক্ষের কাছে শপথ নেন রনিল বিক্রমাসিংহে। তবে তাঁর এই নিয়োগে জনগণের বড় অংশই সন্তুষ্ট নয়। কারণ, তাঁকে দেশটির রাজনীতিতে প্রভাবশালী রাজাপক্ষে পরিবারের ঘনিষ্ঠ মনে করা হয়। বিক্ষোভকাররা প্রেসিডেন্টের পদত্যাগ চান।

শ্রীলঙ্কার অর্থনীতি বিপর্যস্ত। খাদ্য, ওষুধ ও জ্বালানি হয় পাওয়া যাচ্ছে না, অথবা দাম নাগালের বাইরে। সিলিন্ডারে জ্বালানি ভরতে গিয়ে পেট্রল স্টেশনে অপেক্ষমাণ কয়েকজনের মৃত্যুও হয়েছে। ১৯৪৮ সালে ব্রিটেনের কাছ থেকে স্বাধীনতা লাভের পর সবচেয়ে মারাত্মক অর্থনৈতিক সংকটে পড়েছে দেশটি।

Leave a Response