কালিকাপুরে দেখা মিললো ‘ভূতপরী’ জয়ার

‘দেবী’-কে কি ভূতের আছর বলা যায়? নাকি সে নিজেই ভূত! জল্পনা অনেক কিছুই থাকতে পারে। তবে এবার পর্দায় সত্যি সত্যি ভূত হয়ে আসছেন জয়া আহসান।
পশ্চিম বাংলার দর্শকদের সামনে সরাসরি ভূতের চরিত্রেই হাজির হচ্ছেন জয়া। সে দেশের অন্যতম প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান সুরিন্দর ফিল্মসের এই ছবিটির নাম ‘ভূতপরী’। কোয়েল মল্লিক নিবেদিত এই ছবিটির নাম ভূমিকায় থাকছেন ঢাকার জয়া আহসান।
এগুলো পুরনো খবর। নতুন খবর হলো, পশ্চিমবঙ্গের কালিকাপুর গ্রামে এর দৃশ্যধারণ শুরু হয়েছে। সেই সুবাদে দেখা মিলেছে ‘ভূতপরী’ জয়া আহসানের গেটআপ।
যেখানে জয়াকে দেখা গেল ধবধবে সাদা শাড়ি পরে খোলা প্রান্তরে মাটিতে হাত ছুঁয়ে হতবিহ্বলের মতো বসে থাকতে।
শনিবার (৭ সেপ্টেম্বর) দুপুরে ছবিটি সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রকাশ করেন অভিনেত্রী নিজেই।
ছবিটি সম্পর্কে আগেই তিনি বলেছিলেন, ‘‘ভৌতিক ঘরানার ছবি এর আগে ‘দেবী’ করেছি। তবে এখানে (ভারতে) এমন ছবি এবারই প্রথম। এই ছবিটাকে একটি ভূতের আত্মকাহিনি বলা যায়, থ্রিলারও আছে।’
ভূতের ভয় আর রহস্যে মোড়ানো ছবিটির চিত্রনাট্য লিখেছেন পরিচালক নিজেই- সৌকর্য ঘোষাল। এখানে জয়ার  সহশিল্পী হিসেবে আছেন ঋত্বিক চক্রবর্তী।
ছবিটির গল্প প্রসঙ্গে জয়ার বর্ণনা এমন, ভূতের আত্মকথন এটি। এক নারী ১৯৪৭ সালে মারা যান। চলতি বছরে এসে (২০১৯) তার অতৃপ্ত আত্মার সাথে সাক্ষাৎ হয় এক বাচ্চা ছেলের। যার হাত ধরে সে তার মারা যাওয়ার কারণ অনুসন্ধান করতে থাকে। একটা সময় সেই অতৃপ্ত আত্মা মানে ভূত আবিষ্কার করে যে, ১৯৪৭ সালে তার মৃত্যুটি স্বাভাবিক ছিল না, ওটা ছিল খুন!
এই ‘ভূতপরী’র ভূমিকাতে জয়া আহসান আর ছোট্ট ছেলেটির চরিত্রে দেখা যাবে বিশান্তক মুখার্জিকে। এছাড়াও এতে থাকছেন ঋত্বিক চক্রবর্তী, সুদীপ্তা চক্রবর্তী, শান্তিলাল মুখার্জি প্রমুখ।

Leave a Response