সঞ্জয় দত্তের রাজনীতিতে আসা নিয়ে জল্পনা

বিনোদন প্রতিবেদক: সঞ্জয় দত্ত রাজনীতিতে আসছেন। তিনি মহারাষ্ট্রের কোয়ালিশন সরকারের শরিক দল রাষ্ট্রীয় সমাজ পক্ষে (আরএসপি) যোগ দিচ্ছেন। হিন্দুস্তান টাইমসের প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, এমনটাই দাবি করেছেন মহারাষ্ট্র রাজ্য সরকারের শরিক দল আরএসপির সভাপতি এবং রাজ্যের পশুপালন ও মত্‍‌স্য দপ্তরের মন্ত্রী মহাদেব জানকার। এই রাজনৈতিক দলটির ১৬তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে শিবাজি পার্কে আয়োজিত অনুষ্ঠানে সঞ্জয় দত্তের ভিডিও ক্লিপ দেখানো হয়। এই ভিডিও বার্তায় শুভেচ্ছা জানিয়ে সঞ্জয় দত্ত বলেন, ‘আরএসপির জাতীয় সভাপতি মহাদেব জানকার আমার ভাই, আমার বন্ধু। আপনাকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন। যদি আজ আমি দেশে থাকতাম, তাহলে অবশ্যই এই অনুষ্ঠানে অংশ নিতাম।’

এই ভিডিও বার্তা প্রদর্শনের পর মহাদেব জানকার বলেন, ‘সঞ্জয় দত্ত আমাদের সময় দিয়েছেন। আগামী ২৫ সেপ্টেম্বর তিনি আরএসপিতে যোগ দেবেন। তিনি এখন দুবাই আছেন। যদি আজ মুম্বাই থাকতেন, তাহলে অবশ্যই আমাদের এই প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদ্‌যাপন অনুষ্ঠানে আসতেন।’

সঞ্জয় দত্ত

সঞ্জয় দত্তএদিকে এর আগে উত্তর মুম্বাইয়ের দিনদোশিতে আয়োজিত বিজেপির এক অনুষ্ঠানে অংশ নেন সঞ্জয় দত্ত। তখন অনেকেই মনে করেছেন, সঞ্জয় দত্ত শিগগিরই বিজেপিতে যোগ দিচ্ছেন। হয়তো আগামী লোকসভা নির্বাচনে তিনি বিজেপির প্রার্থীও হতে পারেন।

সঞ্জয় দত্ত ২০০৯ সালে প্রথম যোগ দেন উত্তর প্রদেশের সমাজবাদী পার্টিতে। এই দলে তাঁর রাজনীতির হাতেখড়ি হয়। ওই সময় তিনি এই দলের প্রার্থী হয়ে লক্ষ্ণৌ লোকসভা কেন্দ্রে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। কিন্তু আদালতের নিষেধাজ্ঞার কারণে তিনি নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ান। কারণ, ১৯৯২ সালে মুম্বাই বিস্ফোরণ এবং একে ৪৭ রাখার অপরাধে বলিউডের এই জনপ্রিয় তারকাকে কারাদণ্ড দেওয়া হয়। পরে তিনি এই সাজা ভোগ করেন। সমাজবাদী পার্টির সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন সঞ্জয় দত্ত। কিন্তু কিছুদিন পর এই পদ এবং দল থেকে পদত্যাগ করেন তিনি। এরপর আর রাজনীতির সঙ্গে জড়িত হননি।

দুবাইয়ে স্ত্রী মান্যতা দত্ত আর দুই সন্তান শাহরান ও ইকরার সঙ্গে সঞ্জয় দত্ত

দুবাইয়ে স্ত্রী মান্যতা দত্ত আর দুই সন্তান শাহরান ও ইকরার সঙ্গে সঞ্জয় দত্তএদিকে এ বছর লোকসভা নির্বাচনে কংগ্রেস থেকে প্রার্থী হন তাঁর বোন প্রিয়া দত্ত। বোনের জন্য মুম্বাইয়ে তিনি নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নেন। তাঁর বাবা প্রয়াত অভিনেতা সুনীল দত্ত ছিলেন কংগ্রেসের নেতা। মৃত্যুর আগে তিনি কংগ্রেসের মনমোহন সিং সরকারের যুব ও ক্রীড়ামন্ত্রী ছিলেন। তাঁর মা প্রয়াত অভিনেত্রী নার্গিস দত্তও ছিলেন লোকসভার সদস্য।

Leave a Response